দেশের মানুষের আরেকটি মুক্তিযুদ্ধ করতে হবে: আমীর খসরু

অনলাইন ডেস্ক : বাংলাদেশের মানুষের আরেকটি মুক্তিযুদ্ধের প্রয়োজনীয়তা দেখা দিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী।

তিনি বলেছেন, ১৯৭১ সালে যে কারণে মুক্তিযুদ্ধ হয়েছিল সেই গণতন্ত্র, ভোটাধিকারসহ, আইনের শাসন, সামাজিক নিরাপত্তা, ন্যায় বিচার সবকিছু আজ বাংলাদেশে অনুপস্থিত। আজকে মুক্তিযুদ্ধের মূল উদ্দেশ্য ভোটাধিকারসহ সবকিছু যেহেতু কেড়ে নেওয়া হয়েছে তাহলে বাংলাদেশে আরেকটি মুক্তিযুদ্ধের প্রয়োজনীয়তা দেখা দিয়েছে।

শুক্রবার (২০ ডিসেম্বর) দুপুরে রাজধানীর ফটো জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনে মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা এবং আজকের বাংলাদেশ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। আলোচনা সভার আয়োজন করে ‘নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরাম’।

খসরু বলেন, যে কারণে আমরা মুক্তিযুদ্ধ করেছি তার সবকিছু যেহেতু কেড়ে নেওয়া হয়েছে তাহলে অবশ্যই গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনার জন্য, আমার আপনার বাকস্বাধীনতা, গণমাধ্যমের স্বাধীনতা, বিচার বিভাগের স্বাধীনতা ও ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনার জন্য আপনাকে আরেকটি মুক্তিযুদ্ধ করতে হবে।

বিএনপির এই নীতিনির্ধারক বলেন, স্বাধীনতা যুদ্ধে যারা জীবন দিয়েছেন আমরা প্রতিটি মানুষের নাম জানতে চাই। এই সম্পূর্ণ তালিকা দেশের মানুষ, এলাকার মানুষ জানতে চায়। বিএনপি’র পক্ষ থেকে স্পষ্টভাবে বলা হয়েছে বিএনপি যেদিন ক্ষমতায় আসবে সেদিন যারা এদেশের জন্য জীবনের মূল্য ত্যাগ করে প্রাণ দিয়ে দেশকে স্বাধীন করেছেন তাদের তালিকা বিএনপি প্রণয়ন করবে।

তিনি আরও বলেন, মুক্তিযুদ্ধের তালিকা প্রণয়ন করে প্রতিটি এলাকায় স্তম্ভের মধ্যে তাদের নাম লেখা হবে। কিন্তু সরকার এই কাজটি করতে কেন এত দ্বিধাগ্রস্ত তা আমরা জানি না।

বাংলাদেশ বুলেটিন/এমআর