সশস্ত্র বাহিনীকে আরও আধুনিক করে গড়ে তুলতে চাই: প্রধানমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক : বাংলাদেশের সশস্ত্র বাহিনীকে গুরুত্ব দিয়ে আরও আধুনিক বাহিনী হিসেবে গড়ে তুলতে সরকার কাজ করছে বলেও জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

আজ বৃহস্পতিবার (২৬ ডিসেম্বর) যশোরে বিমানবাহিনী একাডেমিতে বক্তব্য রাখার সময় তিনি এই কথা জানান। বিমানবাহিনীর ক্যাডেটদের শীতকালীন রাষ্ট্রপতি কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে যোগ দেন প্রধানমন্ত্রী।

সশস্ত্র বাহিনীর উন্নয়নের বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন ও আওয়ামী লীগ সরকারের পদক্ষেপের কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুকে হত্যার ২১ বছর পর সরকার গঠন করি। ক্ষমতায় এসে আওয়ামী লীগ বিমান বাহিনীর উন্নতির পদক্ষেপ নেয়। ৯৬ সালে আমরা ক্ষমতায় এসে তৎকালীন সবচেয়ে আধুনিক যুদ্ধবিমান মিগ-টোয়েন্টিনাইন কিনি। বিমান বাহিনীসহ সব বাহিনীকে আধুনিক করতে যুদ্ধবিমানসহ বিভিন্ন ধরনের সরঞ্জাম কেনা হয়েছে। এখন বিমান বাহিনী অনেক বেশি দক্ষ ও চৌকশ। ক্যাডেটদের প্রশিক্ষণের মেয়াদ বাড়ানো হয়েছে। যাতে তারা বিভিন্ন বিষয়ে গ্র্যাজুয়েশন করতে পারে।’

বঙ্গবন্ধুর আদর্শ মনে করিয়ে দিয়ে তিনি ক্যাডেটদের উদ্দেশে বলেন, ‘সৈনিক জীবন অত্যন্ত কঠিন জীবন, তবে পথ হারানো যাবে না। আমি আশা করি এই কথা আপনারা সবসময় মনে রাখবেন। বিমান বাহিনী অ্যাকাডেমি থেকে যে প্রশিক্ষণ আপনারা গ্রহন করেছেন তার যথেষ্ট অনুশীলন আপনারা বাস্তব জীবনেও রাখবেন।’

২০২০ সালে জাতির পিতার জন্মশত বার্ষিকী আমরা উদযাপন করব। ২০২১ সালে স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী পালন করবো। এই অনুষ্ঠানগুলোর মধ্য দিয়ে আমাদের স্বাধীনতার পতাকা আরও সমুজ্জ্বল হবে। বিশ্ব দরবারে আমরা দেশকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাব এটাই আমাদের লক্ষ্য।

বাংলাদেশ বুলেটিন/এমআর