ঢাকা, শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১ ই-পেপার

চট্টগ্রামে কবরস্থান নিয়ে বিরোধ : দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১৩

কামরুজ্জামান রনি, চট্টগ্রাম :

২০২১-০৬-১১ ১৭:০০:৩০ /

নগরীর বাকলিয়া থানাধীন ১৮ নং পূর্ব বাকলিয়া ওয়ার্ডের  আবদুল লতিফ হাটখোলা এলাকায় কবরস্থানের সাইনবোর্ড লাগানোকে কেন্দ্র করে দুইপক্ষের সংঘর্ষে ১৩ জন আহত হয়েছে। এসময় একপক্ষ অপর পক্ষের ওপর প্রকাশ্যে অস্ত্রহাতে গুলি ছুড়তে দেখা যায়৷ শুক্রবার (১১ জুন) সকাল সাড়ে ১১টার দিকে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শীরা সূত্রে জানা যায়, কবরস্থানে নতুন সাইনবোর্ড টাঙ্গানোকে কেন্দ্র করে বড় মৌলভী বাড়ির লোকজনের সাথে স্থানীয় ইয়াকুব আলী বাড়ীর লোকজনের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনাটি ঘটে।

বড় মৌলভী বাড়ির লোকজনের অভিযোগ, শুক্রবার তাদের পারিবারিক কবরস্থানে সাইন বোর্ড লাগাতে গেলে স্থানীয় ইয়াকুব আলীর লোকেরা তাদের বাঁধা দেয়৷ একপর্যায়ে ইয়াকুব আলীর স্বশস্ত্র লোকজন তাদের ওপর গুলি ছুড়ে৷ এতে তাদের অনেকেই গুরুতর আহত হয়েছে৷ 

অপর দিয়ে ইয়াকুব আলীর পক্ষের লোকজনের দাবি, শত বছর ধরে বড় মৌলভী বাড়ি কবরস্থানটি স্থানীয়রা পরিচালনা করে আসছে৷ এটি কারো ব্যক্তিগত বা পারিবারিক কবরস্থান নয়। বাংলাদেশ বুলেটিনের হাতে আসা সংঘর্ষ চলাকালিন সময়ের একাধিক ছবিতে লুঙ্গি পরিহিত অবস্থায় ইয়াকুবকে তার লোকজন সহ পরিষ্কার দেখা যাচ্ছে৷ তবে এই বিষয়ে জানতে তার মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে সেটি বন্ধ পাওয়া যায়।

এই ঘটনার পর অন্তত তিনজন ব্যক্তির অস্ত্রহাতে ছবি ছড়িয়ে পড়ে৷ যাদের মধ্যে টি শার্ট পরিহিত ব্যক্তিটি বলির হাট এলাকার মহিউদ্দিন বলে স্থানীয়রা সনাক্ত করতে পেরেছে৷ ঘটনার সময় গুলি ছুড়তে দেখা যাওয়া হলুদ রঙের শার্ট পরিহিত ব্যক্তিটি মাজার গেইট এলাকার বাসিন্দা জনি বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা তবে নীল শার্ট পরিহিত যুবকটির পরিচয় এখনো জানা যায়নি।

এদিকে এই হামলায় ৪জন গুলিবিদ্ধ হয়েছেন বলে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে। তারা হলেন- মো. মাসুদ (২৮), আবদুল্লাহ কাইছার (৩৯), মো. মুরাদ (২৫) ও মো. ফয়সাল (২৮)।  

এছাড়া আহত অন্যান্যরা হলেন- জাহাঙ্গীর (৪২), মো. তৈয়ব (২৮), জয় (১৪), শহিদুল্লাহ (৩৮), রিয়াজ উদ্দিন (২০), মো. আসিফ (২৪), মান্নান (৩৯), শাহাব উদ্দিন শাওন (২৫) ও সামাদ (২২)।

চমেক হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ জহিরুল ইসলাম জানান, দুপুর ১২টার দিকে একে একে আহতদের চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। আহতদের আঘাত বিবেচনায় জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাদেরকে বিভিন্ন হাসপাতালের ওয়ার্ডে ভর্তি করে দেন।

সংঘর্ষের পর ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনা হয়েছে বলে জানিয়েছে বাকলিয়া থানার অফিসার্স ইনচার্জ রুহুল আমিন৷ 

তিনি বাংলাদেশ বুলেটিনকে বলেন, ঘটনার সংবাদ পেয়ে আমি সহ থানার একাধিক ফোর্স ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনি৷ এখন পর্যন্ত কেউ থানায় অভিযোগ না জানালেও ঘটনায় জড়িতদের ধরতে আমরা অভিযান চালিয়ে যাচ্ছি৷" মূলত কবরস্থানে সাইনবোর্ড লাগানোকে কেন্দ্র করেই সংঘর্ষের সূত্রপাত। আর অপরাধী বা অস্ত্রধারি কাউকেই ছাড় দেয়া হবে না বলে জানান ওসি রুহুল আমিন।

বাবু/প্রিন্স

এ জাতীয় আরো খবর

নগরীতে বেপরোয়া ব্যাটারি চালিত রিকশা; হরহামেশাই ঘটছে দুর্ঘটনা

নগরীতে বেপরোয়া ব্যাটারি চালিত রিকশা; হরহামেশাই ঘটছে দুর্ঘটনা

মুনিয়া হত্যায় নতুন মোড়; অভিযোগকারীই এখন অভিযুক্ত

মুনিয়া হত্যায় নতুন মোড়; অভিযোগকারীই এখন অভিযুক্ত

সিআরবি এলাকায় হাসপাতাল : দুই দিনে দুই সাধারণ সম্পাদকের দুই রকম কথা

সিআরবি এলাকায় হাসপাতাল : দুই দিনে দুই সাধারণ সম্পাদকের দুই রকম কথা

সাবেক ২য় স্ত্রীর বর্তমান স্বামীকে প্রাণনাশের হুমকি দিলেন ডাঃ ফয়সাল

সাবেক ২য় স্ত্রীর বর্তমান স্বামীকে প্রাণনাশের হুমকি দিলেন ডাঃ ফয়সাল

চট্টগ্রামে পুলিশ সদস্যের ইয়াবা সেবনের ভিডিও ভাইরাল (ভিডিও সহ)

চট্টগ্রামে পুলিশ সদস্যের ইয়াবা সেবনের ভিডিও ভাইরাল (ভিডিও সহ)

অবশেষে বহদ্দারহাটে ওজনে কারচুপির ঘটনায় থানায় জিডি গ্রহণ

অবশেষে বহদ্দারহাটে ওজনে কারচুপির ঘটনায় থানায় জিডি গ্রহণ