ঢাকা, মঙ্গলবার, ৭ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

ঘুষ ছাড়া কোনো সেবা মিলে না নেত্রকোনার বারহাট্টা উপজেলা সমবায় কার্যালয়ে

নেত্রকোনা প্রতিনিধি :

২০২১-১১-২৪ ২০:৩৪:৩৫ /

সমবায় সমিতির নিবন্ধন করতে নেত্রকোনার বারহাট্টা সমবায় কার্যালয়ে যান হুমায়ুন কবির নামে এক যুবক। আজ কাল করে কিছুদিন সময় ক্ষেপন করার পর কর্মকর্তারা জানান নিবন্ধন পেতে লাগবে মোটা অঙ্কের টাকা। বিষয়টি কাউকে জানালে বা  কোনরকম তদবির করলে ফল উল্টো হবার হুমকিও দেওয়া হয়। 

শুধু হুমায়ুন কবিরই নন সমিতির নিবন্ধন করতে গিয়ে এমন অভিজ্ঞতার মুখোমুখি হয়েছেন উপজেলার অসংখ্য মানুষ। কোন প্রতিকার না পেয়ে শেষে কর্মকর্তাদের ঘুষের দাবি মেনে নিয়েই সমিতির নিবন্ধন নিচ্ছেন অনেকে।

ঘুষ গ্রহণের এমন অভিযোগ বারহাট্টা সমবায় কর্মকর্তা আতাউর রহমান ও সহকারী পরিদর্শক পান্না আক্তারের বিরুদ্ধে। 

ভুক্তভোগী উপজেলার মল্লিকপুর গ্রামের হুমায়ুন কবির বলেন, ‘মুল্লিকপুর মহিলা সমবায় সমিতি’ ঘটন করার পর নিবন্ধন করাতে কার্যালয়ে যাই। ফাইলপত্র কেনার জন্য পাঁচ হাজার টাকা চায় তারা। পাঁচ হাজার টাকা নেওয়ার পর আরও টাকার জন্য চাপ দিতে থাকে। এক পর্যায়ে তারা জানায়, ওই পাঁচ হাজার টাকা ফাইলপত্র-খাতা কলম কিনেই শেষ। নিবন্ধন পেতে হলে আরও ২৫ হাজার টাকা দিতে হবে। শেষে বাধ্য হয়ে ১৫ হাজার টাকা দেওয়ার জন্য রাজিও হই। কিন্তু এতেও কাজ হয়নি। এক টাকাও কম হবে না বলে তারা সাফ জানিয়ে দেয়। ওই কার্যালয়ের সহকারী পরিদর্শক পান্না আক্তার মূলত ঘুষ চাওয়ার কাজটি করে। তবে এ বিষয়ে উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা আতাউর রহমানকে জানালেও তিনি নিরব থাকেন। হয়তো তাদের মধ্যে একটা যোগসাজস আছে। 

আরেক ভুক্তভোগী আলোকদিয়া গ্রামের লিয়ন আহমেদ বলেন, ‘আলোকদিয়া সমাজ কল্যাণ সমিতি’ নামে আমাদের একটা সমিতি আছে। কয়েকদিন আগে ওই সমিতির নিবন্ধন করানোর জন্য গেলে আমার কাছে ৫০ হাজার টাকা ঘুষ চায় পান্না। চাহিদার পরিমাণ কিছুটা কমানোর জন্য অনেক অনুরোধ করলেও কোন কাজ হয়নি। তার সাফ কথা এক টাকা কম হলেও কাজ হবে না। বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কাউকে জানাবো ভাবছি। 

বিষয়টি জানতে বারহাট্টা উপজেলা সমবায় কার্যালয়ে গেলে সমবায় কর্মকর্তা আতাউর ও সহকারী পরিদর্শক পান্না দুজনেই এই  প্রতিবেদকের প্রতি ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন। ঘুষের বিষয়টি অস্বীকার করলেও এক পর্যায়ে তাদের কাছে থাকা পাঁচ হাজার টাকা পাশের আলমিরা থেকে বের করে দিয়ে পান্না বলেন, এই নেন টাকা, এই সমিতি আর কোনদিনও নিবন্ধন হবে না।

এ সময় তাদের চিৎকার শুনে সিংধা ইউপির সাবেক সংরক্ষিত নারী সদস্য সন্ধ্যা রানী রায় এসে তাদের থামান।  এ বিষয়ে তিনি বলেন, এই অফিসটা একটা ঘুষের আখড়া। ঘুষ চাওয়ার কাজটা পান্না করলেও ভাগ দুজনেই নেয়। 

নিজের কাছে থাকা ঘুষের টাকা বের করে অভিযোগকারীকে ফিরিয়ে দিলেও  সমিতির নিবন্ধন নিতে কোন ঘুষ নেন না বলে জানান পান্না আক্তার। 

পরপর দুজন অভিযোগকারীর বিষয়ে জানালে সমবায় কর্মকর্তা আতাউর রহমান এই প্রতিনিধিকে বলেন, কার কাছ থেকে কত টাকা নেওয়া হলো এসব বিষয় সাংবাদিকের জানার দরকার কি। আপনারা জেনেও কিছু করতে পারবেন না। কারণ আমি না চাইলে সমিতির নিবন্ধন কোনো ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাও দিতে পারবে না।

বিষয়টি অবগত করলে জেলা সমবায় কর্মকর্তা মোহাম্মদ রবিন ইসলাম (অতিরিক্ত দায়িত্ব)  বলেন, একটি সমবায় সমিতির নিবন্ধ পেতে রাজস্বসহ সব মিলিয়ে খুব বেশি হলেও আড়াই হাজার টাকার বেশি খরচ হওয়ার কথা নয়। এ বিষয়ে ভোক্তভোগীরা লিখিত অভিযোগ দিলে খতিয়ে দেখে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বাবু/ফাতেমা

এ জাতীয় আরো খবর

বড়াইগ্রামে আলোচিত বাবু হত্যাকাণ্ডে ১৪ আসামিকে কারাগারে প্রেরণ

বড়াইগ্রামে আলোচিত বাবু হত্যাকাণ্ডে ১৪ আসামিকে কারাগারে প্রেরণ

নেত্রকোনার মোহনগঞ্জ ও খালিয়াজুরী ইউপি নির্বাচনে প্রার্থীদের  প্রতীক বরাদ্দ সম্পন্ন

নেত্রকোনার মোহনগঞ্জ ও খালিয়াজুরী ইউপি নির্বাচনে প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্দ সম্পন্ন

বাজারের ব্যাগে মিলল বিপুল ইয়াবা

বাজারের ব্যাগে মিলল বিপুল ইয়াবা

গভীর সমুদ্রে তক্তার ওপর ১২ ঘণ্টা ভেসেছিলেন হাফিজ!

গভীর সমুদ্রে তক্তার ওপর ১২ ঘণ্টা ভেসেছিলেন হাফিজ!

কাউন্সিলর হত্যা মামলায় ৪ আসামির ৫ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর

কাউন্সিলর হত্যা মামলায় ৪ আসামির ৫ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর

৫০ মন জাটকা এতিম খানা মাদ্রাসা গরীবদের দেওয়া হলো

৫০ মন জাটকা এতিম খানা মাদ্রাসা গরীবদের দেওয়া হলো