ঢাকা, শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০২০ ই-পেপার

ডিএসইতে লেনদেন বেড়েছে ১৩৬৫ শতাংশ

বুলেটিন প্রতিবেদক :

২০২০-০৭-০৩ ২১:১২:৪৪ /

গত সপ্তাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ব্লক মার্কেটের মাধ্যমে গ্লাক্সোস্মিথক্লাইন (জিএসকে) বাংলাদেশ লিমিটেডের শেয়ার কিনে নেয় ইউনিলিভার। এতে সপ্তাহটিতে ডিএসইতে লেনদেনে বড় ধরনের উন্নতি হয়েছে। যার প্রভাবে এক সপ্তাহে ডিএসইতে লেনদেন বেড়েছে এক হাজার ৩৬৫ শতাংশের উপরে।

গত সপ্তাহের প্রতি কার্যদিবসে ডিএসইতে গড়ে লেনদেন হয়েছে ৮৩৩ কোটি ৭০ লাখ টাকা। আগের সপ্তাহে প্রতিদিন গড়ে লেনদেন হয় ৫৬ কোটি ৮৭ লাখ টাকা। অর্থাৎ প্রতি কার্যদিবসে গড় লেনদেন বেড়েছে ৭৭৬ কোটি ৮৩ লাখ টাকা বা ১৩৬৫ দশমিক ৯৭ শতাংশ। আর সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ৩ হাজার ৩৩৪ কোটি ৮১ লাখ টাকা। আগের সপ্তাহে লেনদেন হয় ২৮৪ কোটি ৩৫ লাখ টাকা। সে হিসাবে মোট লেনদেন বেড়েছে ৩ হাজার ৫০ কোটি ৪৬ লাখ টাকা।

লেনদেনের উত্থানের মূল কারণ, গত ২৮ জুন ডিএসইর ব্লক মার্কেটে গ্লাক্সোস্মিথক্লাইনের এক কোটি ৮ লাখ ৭৫ হাজার ১৪৪টি শেয়ার লেনদেন হয়। যার মূল্য ২ হাজার ২২৫ কোটি ৩৮ লাখ ৭ হাজার টাকা। এর মধ্যে গ্লাক্সোস্মিথক্লাইনের উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের ৯৮ লাখ ৭৫ হাজার ১৪৪টি শেয়ার ২ হাজার ৪৬ টাকা ৩০ পয়সা করে ইউনিলিভার তার সহযোগী প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে কিনে নেয়।

লেনদেনে বড় উত্থানের সপ্তাহে বেড়েছে মূল্য সূচক। সেই সঙ্গে যে কয়কটি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম কমেছে, বেড়েছে তার দ্বিগুণের বেশি। ফলে প্রায় এক হাজার কোটি টাকা ফিরে পেয়েছেন বিনিয়োগকারীরা। 

অবশ্য গত কয়েক সপ্তাহের মতো গত সপ্তাহেও লেনদেনে অংশ নেয়া বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম অপরিবর্তিত থাকে। গত সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেয়া ৪৮টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ১৮টির। আর ২৮১টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে। এতে সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস শেষে ডিএসইর বাজার মূলধন দাঁড়িয়েছে ৩ লাখ ১১ হাজার ৭৭৫ কোটি টাকা। যা তার আগের সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে ছিল ৩ লাখ ১০ হাজার ৮৩৪ কোটি টাকা। অর্থাৎ এক সপ্তাহে ডিএসইর বাজার মূলধন বেড়েছে ৯৪১ কোটি টাকা।

এদিকে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স বেড়েছে ১৭ দশমিক ৪৫ পয়েন্ট। আগের সপ্তাহে এ সূচকটি বাড়ে ৬ দশমিক ৭৩ পয়েন্ট। বাকি দুটি সূচকের মধ্যে ডিএসই শরিয়াহ সূচক বেড়েছে ২ দশমিক ৬১ পয়েন্ট। আগের সপ্তাহে এ সূচকটি বাড়ে দশমিক ৯৪ পয়েন্ট। আর ডিএসই-৩০ বেড়েছে ৯ দশমিক ১৮ পয়েন্ট। আগের সপ্তাহে এ সূচকটি বাড়ে ৪ দশমিক ৮৯ পয়েন্ট।

আগের সপ্তাহের মতো গত সপ্তাহে লেনদেনের প্রায় পুরোটা ছিল ‘এ’ গ্রুপ বা ভালো কোম্পানির দখলে। মোট লেনদেনের মধ্যে ‘এ’ গ্রুপের প্রতিষ্ঠানের অবদান দাঁড়ায় ৯৮ দশমিক ৯৮ শতাংশ। এছাড়া ডিএসইর মোট লেনদেনে ‘বি’ গ্রুপের অবদান দশমিক ৬৫ শতাংশ এবং ‘জেড’ গ্রুপের প্রতিষ্ঠানের অবদান দশমিক ৩৭ শতাংশ।

বাবু/আমেনা

এ জাতীয় আরো খবর

শেয়ারবাজারে ১১শ কোটি টাকা লেনদেন

শেয়ারবাজারে ১১শ কোটি টাকা লেনদেন

ডিএসইতে লেনদেন বেড়েছে ১৩৬৫ শতাংশ

ডিএসইতে লেনদেন বেড়েছে ১৩৬৫ শতাংশ

২০১৯-২০ অর্থবছর : ৮৮ হাজার কোটি টাকা হারালেন বিনিয়োগকারীরা

২০১৯-২০ অর্থবছর : ৮৮ হাজার কোটি টাকা হারালেন বিনিয়োগকারীরা

৩০ ব্যাংককে বিএসইসি’র চিঠি

৩০ ব্যাংককে বিএসইসি’র চিঠি

সাউথইস্ট ব্যাংকের লভ্যাংশ ঘোষণা

সাউথইস্ট ব্যাংকের লভ্যাংশ ঘোষণা

লাভ-ক্ষতির তথ্য দিয়েছে শেয়ারবাজারের তালিকাভুক্ত ১৫ কোম্পানি

লাভ-ক্ষতির তথ্য দিয়েছে শেয়ারবাজারের তালিকাভুক্ত ১৫ কোম্পানি